কিভাবে এফিলিয়েট মার্কেটিং এর মাধ্যমে প্যাসিভ ইনকাম করবেন ?

আপনি কী জানেন যে আপনি দুনিয়ার যেকোন জায়গা থেকে কোন অফিসে আটকে না থাকে কিংবা অন্য কোন কাজ না করে শুধুমাত্র অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে একটা প্যাসিভ ইনকাম তৈরি করতে পারবেন

এর জন্য আপনাকে কি কি জিনিস প্রয়োজন?

এর জন্য কিছুই না আপনার নলেজ আর কিছু অল্প টাকা এবং অবশ্যই ইন্টারনেট কানেকশন এবং সহজে শিখতে পারা স্কেল

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে টাকা আয় করতে কতক্ষণ সময় লাগবে?

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিংয়ের মাধ্যমে আপনি খুব কম সময় টাকা উপার্জন করতে পারবেন এবং আপনি আপনার ইনকাম টা কে খুব তাড়াতাড়ি বৃদ্ধি করতে পারবেন

আপনি কি জানেন যে বিশ্বের 81 শতাংশ ব্রান্ড অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর ব্যবহার করে তাদের কোম্পানি প্রোডাক্ট প্রমোট করার জন্য

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর মানে কি?

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং হল ধরুন আপনার কোন প্রোডাক্ট আছে আপনি প্রোডাক্ট তৈরি করছেন অন্য একজন তৃতীয় ব্যক্তি আপনার প্রডাক্ট কে প্রমোশন করে তা বিক্রি করল তাহলে আপনি সেই তৃতীয় ব্যক্তিকে কিছু কমিশন দিলেন এটাই হলো অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর জন্য আপনার নিজের প্রোডাক্ট তৈরি দরকার পড়ে না আপনি অন্যের প্রোডাক্ট নিয়ে তা প্রমোট করে সহজেই উপার্জন করতে পারবেন

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং কিভাবে কাজ করে?

বড় বড় কোম্পানি এবং ব্রান্ড তাদের সেল বিক্রি বাড়ানোর জন্য অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর স্ট্রাটেজি ব্যবহার করে অ্যামাজন ফ্লিপকার্ট ইবে প্রভৃতি বিশ্বের সবথেকে বড় বড় অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম

আপনি ধরন আমাজন অ্যাফিলিয়েট প্রোগ্রাম এ জয়েন হলেন এবার আপনি আমাজনের যেকোনো একটা প্রোডাক্ট চয়েজ করে সেটা প্রমোট করলে এবং তখন আপনার লিংক থেকে কেউ যদি আমাজনের কোন প্রোডাক্ট কেনে তাহলে আপনি সেই প্রোডাক্টের বিক্রির জন্য কিছু কমিশন পাবেন এবং এই কমিশন তাই হলো অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং

তাহলে এই ব্যবসাটাকে আমরা মোটামুটি তিন ভাগে ভাগ করতে পারি

এক হল সেলার এবং প্রোডাক্ট ডিজাইন

দুই হলো অ্যাফিলিয়েট মার্কেটার

তৃতীয় হল কাস্টমার

তাহলে প্রথমে সেলার এবং প্রোডাক্ট ডিজাইনার এর কাজ কি?

সেলার বা প্রোডাক্ট ডিজাইনের কাজ হল মার্কেটের প্রয়োজন অনুযায়ী প্রোডাক্ট তৈরি করা বা ডিজাইন করা এরা কোন ছোট কোম্পানি হতে পারে আবার কোন বড় কোম্পানি হতে পারে এবং এই প্রোডাক্ট ফিজিক্যাল প্রোডাক্ট ও হতে পারে ডিজিটাল প্রোডাক্ট হতে পারে অথবা ডিজিটাল কোন সার্ভিস ও হতে পারে

এরপরে আসছে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটার এর কাজ কি?

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটার এ কাজ হল কোন একটা নির্দিষ্ট প্রোডাক্ট সিলেক্ট করে সেই প্রডাক্ট কে প্রমোট করা সেই প্রোডাক্টে দোষ গুণ কাস্টমারকে ভালোভাবে বোঝানো
আফিলিয়েট মারকেটিং এ যারা কাজ করে তাদের একটা নির্দিষ্ট টার্গেট অডিয়েন্স থাকে কারণ তারা কেবলমাত্র একটা কিংবা দুটো প্রোডাক্ট নিয়ে কাজ করে এবং সেই সমস্ত প্রোডাক্ট এর টার্গেট অডিয়েন্স তৈরি করে তারা এই সমস্ত প্রোডাক্ট এর রিভিউ করে সেটা ভিডিও হতে পারে বা ব্লগ হতে পারে এর মাধ্যমে প্রমোট করে এবং প্রতিটা বিক্রির জন্য একটা করে কমিশন পায়

তৃতীয় হল কাস্টমার

কাস্টমার হল এই ব্যবসার সবথেকে লাস্ট এবং গুরুত্বপূর্ণ অংশ এই ব্যবসাটা শেষ হয় যখন কোন অ্যাফিলিয়েট মার্কেটার তার কোন টার্গেট অডিয়েন্স এর কাছে সেই কোম্পানির কোন প্রোডাক্ট সেল করতে পারে এবং তার থেকে সে নিজে কিছু উপার্জন করে এবং যাকে বিক্রি করছে তার নিজের কিছু সুবিধা হয়

কিভাবে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটারদের পেমেন্ট করা হয়

যতগুলো অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং প্রোডাক্ট কোম্পানি আছে তারা সবাই আলাদা আলাদা ভাবে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটারদের পেমেন্ট করে আপনি যখন কোন কোম্পানির কোন প্রোডাক্টের অ্যাফিলিয়েট মার্কেটার হবেন বা তাদের প্রোগ্রামের জয়েন করবেন তখন আপনাকে এই নিচের তিনটি মধ্যে যেকোনো একটি পদ্ধতিতে পেমেন্ট করা হবে

প্রথম আলো পে পার সেল

এটা হলো মোস্ট কমন অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং সিস্টেম এখানে আপনি কোন প্রোডাক্ট সেল করার পর প্রতিটি প্রোডাক্ট বিক্রিতে একটা নির্দিষ্ট কমিশন পান

দ্বিতীয় হল পেমেন্ট per lead

কিছু কিছু অ্যাফিলিয়েট সিস্টেম আছে যেখানে কাস্টমারদের কোন কিছু কেনার থেকে কোন কিছু অ্যাকশন নেওয়ার ক্ষেত্রে বেশি মনোযোগ দেওয়া হয় যেমন 1 কোন প্রোডাক্ট না কিনলেও কাস্টমারের ফোন নাম্বার বা ইমেইল এড্রেস প্রভৃতি সংগ্রহ করার জন্য অনেক কোম্পানি পেমেন্ট করে এখানে আপনাকে প্রতি lead থেকে কিছু পেমেন্ট করা হয়

আর একটা আছে সেটা হল pay-per-click

এটা কেবলমাত্র কোন ওয়েবসাইটে বিজ্ঞাপন এর দ্বারা সম্ভব হয় যে আপনি কোন বিজ্ঞাপনে ক্লিক করলে তাদের ওয়েবসাইটে গেলেন এবং সেখান থেকে কিছু জিনিস কিনলে এবং যারা বিজ্ঞাপন দেয় তারা হল ওই ওই সাইটের অ্যাফিলিয়েট মার্কেট এরা পেজ বিজ্ঞাপনের মাধ্যমে এফিলিয়েট মার্কেটিং করে

Leave a Comment